সেমিফাইনালে দেখা হচ্ছে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার!

0
623

স্পোর্টস ডেস্ক:
বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে বিশ্বকাপ ফুটবল মানেই যেনো ব্রাজিল আর আর্জেন্টিনা। এ দু’দলের সাপোর্টারদের কারণে অন্য দলগুলোকে তেমন একটা খুজেই পাওয়া যায় না। তারপরও দেখা যায় জার্মানি, স্পেন ও ইংল্যান্ডের মতো দলগুলোর সাপোর্টারদের।

এবারের বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের যাত্রাটা শুভ হয়নি। উভয় দলই নিজেদের প্রথম ম্যাচে ড্র করে বিপাকে পড়ে যায়। দ্বিতীয় ম্যাচে ব্রাজিল জয় পেলেও আর্জেন্টিনা ক্রোয়েশিয়ার কাছে ৩-০ গোলের বিশাল ব্যবধানে পরাজিত হয়। যার ফলে দ্বিতীয় রাউন্ডে যাওয়াই তাদের জন্য কষ্টসাধ্য ব্যাপার হয়ে দাঁড়ায়। শেষ ম্যাচে দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়িয়ে নক আউট নিশ্চিত করে আর্জেন্টিনা। অন্যদিকে ব্রাজিল হেসেখেলেই নক আউটে পা রাখে।

গতকাল বিরতি দিয়ে আজ থেকে শুরু হচ্ছে দ্বিতীয় পর্বের নক আউট লড়াই। নক আউট পর্বের প্রথম ম্যাচের মুখোমুখি হচ্ছে দু’বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা ও ৯৮’র বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স। অপরদিকে ব্রাজিল নক আউট পর্বে মুখোমুখি হবে মেক্সিকোর।

প্রীতি ম্যাচ কিংবা কোয়ালিফায়ার ম্যাচে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার দ্বৈরথ দেখার সৌভাগ্য হলেও বিশ্বকাপের মূলমঞ্চে দেখা হয়নি এখনো। গতবারের বিশ্বকাপে দেখার সুযোগ তৈরি হয়েছিল কিন্তু সেমিফাইনালে জার্মানির কাছে হেরে বিদায় নেয়ায় সে সুযোগও হয়নি। এবারের বিশ্বকাপে ল্যাটিনের এ দু’দেশের দেখা হওয়ার সুযোগ আবার তৈরি হয়েছে। তাও যদি কিন্তুর ওপর।

বিশ্বকাপে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার দ্বৈরথ সবশেষ দেখার সুযোগ হয়েছিল ১৯৯০’র বিশ্বকাপে। সেবার তারা নক আউট পর্বেই মুখোমুখি হয়েছিল। ২৪ জুন ১৯৯০ এ ইতালির মাঠ স্ত্যাদিও ডেলে আলপি তুরিনে ব্রাজিলকে ৮১ মিনিটে ক্লাদিও ক্যানেজিয়ার একমাত্র গোলে পরাজিত করে আর্জেন্টিনা।

এবার আসুন দেখে নেই কিভাবে কী হলে সেমিতে মুখোমুখি হবে দু’দল। সর্বপ্রথম হল উভয় দলকেই নক আউট স্টেজে নিজ নিজ প্রতিপক্ষকে পরাজিত করতে হবে। প্রথমে আসি আর্জেন্টিনার ক্ষেত্রে। আর্জেন্টিনা তাদের প্রতিপক্ষ ফ্রান্সকে পরাজিত করলে তারা চলে যাবে কোয়ার্টার ফাইনালে। সেখানে তারা অপেক্ষা করবে উরুগুয়ে-পর্তুগাল ম্যাচের জয়ী দলের জন্য। এরপর আর্জেন্টিনা কোয়ার্টার ফাইনালে তাদের প্রতিপক্ষ উরুগুয়ে-পর্তুগাল ম্যাচের জয়ী দলকে হারাতে পারলেই তারা চলে যাবে সেমিফাইনালে।

এবার আসি পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিলের কথায়। ব্রাজিল তাদের নক আউট পর্বের ম্যাচে মুখোমুখি হবে উত্তর আমেরিকার দেশ মেক্সিকোর বিপক্ষে। মেক্সিকোর বিপক্ষে তারা জয়লাভ করলে চলে যাবে কোয়ার্টার ফাইনালে। সেখানে তারা অপেক্ষা করবে বেলজিয়াম-জাপান ম্যাচের জয়ী দলের জন্য। এরপর ব্রাজিল কোয়ার্টার ফাইনালে তাদের প্রতিপক্ষ বেলজিয়াম-জাপান ম্যাচের জয়ী দলকে হারাতে পারলে তাও চলে যাবে সেমিফাইনালে। যেখানে তাদের জন্য অপেক্ষা করবে আর্জেন্টিনা।

আর এ ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে ১০ জুলাই রাত ১২টায় সেন্ট পিটার্সবার্গে। যেখানে হেক্সা মিশনে আসা ব্রাজিল ও ৩২ বছরের শিরোপা খরা কাটাতে আসা আর্জেন্টিনার ল্যাটিন ছন্দের খেলা উপভোগ করবে ফুটবলপ্রেমীরা। সেই সঙ্গে দেখা মিলবে দু’দলের সেরা তারকা লিওনেল মেসি ও নেইমারের ফুটবল শৈলীর। অন্তত সে অপেক্ষাতেই পথ চলা শুরু হক দু’দলের।