সাতক্ষীরায় বেদখলে থাকা জেলা পরিষদের ১০০ কোটি টাকা মূল্যের জমি উদ্ধারে অভিযান

0
330

মীর খায়রুল আলম:

সদর উপজেলার আলিপুর কাউন্সিল থেকে ভোমরা স্থলবন্দরপর্যন্ত বেদখলে থাকা ১৫০ একর জমি উদ্ধারের অভিযান শুরু হয়েছে। জেলা
পরিষদের বেদখলে থাকা এসব জমি উদ্ধার হলে ওই জমির মূল্য প্রায় ১০০ কোটি টাকা হবে বলে জেলা পরিষদ সূত্রে জানা গেছে। শনিবার (২৪মার্চ) আলিপুর থেকেভোমরা স্থলবন্দর পর্যন্ত মূল সড়কের পাশে এবং গুরুত্বপূর্ণ স্থানে অবস্থানকৃত এসব জমি উদ্ধারকালে দেখা যায়, এসব জমি কারও দখলে, আবার কেউ কেউ নিয়েছেন লিজ।

এব্যাপারে জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সৈয়দ আমিনুর রহমান বলেন, ‘যদি কারও মালিকানাভুক্ত সম্পত্তি থাকে তাহলে কাগজপত্রাদি
মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের মূল্যবান সম্পদ থাকার পরও আয়ের খাত খুবই সংকীর্ণ।বেদখলে থাকা জমি উদ্ধারে কঠোর অভিযান চালায়।

এ অভিযানে আরো উপস্থিত ছিলেনজেলা পরিষদ সদস্য ওবায়দুর রহমান লাল্টু, শেখ আমজাদ হোসেন, মোস্তফা কামাল মুকুল, আব্দুল হাকিম, কাজী নজরুল ইসলাম হিল্লোল, মহিতুর রহমান, ডালিম কুমার ঘরামী, আল-ফেরদৌউস আলফা, মনিরুল ইসলাম, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য এড.শাহনেওয়াজ পারভীন মিলি, মাহফুজা রুবিসহ জেলা-পরিষদের কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ।

জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সৈয়দ আমিনুর রহমান বাবু বলেন, ‘পরিষদের মূল্যবান অনেক ভূমি ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে। অনেকেই এসব জমি দখল করে রেখেছেন। দেশের অন্যান্য জেলার চেয়ে সাতক্ষীরায় আয়ের খাতও কম। এ কারণে জমি উদ্ধারে তারা অভিযান শুরু করেছেন। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানান।