সংবাদ প্রকাশের জের: র‌্যাবের সফল অভিযানে দেবহাটার মাদক স্বর্গ বহেরা থেকে ২২৬ বোতল ফেনসিডিলসহ মফিজুল আটক

0
397

আব্দুর রব লিটু, দেবহাটা: বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় সংবাদ জের ধরে র‌্যাবের সফল অভিযানে কুলিয়ার বহেরা গ্রামের লুৎফর রহমানের পুত্র মফিজুল ইসলাম(৩২)কে আটক হয়েছে। বুধবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৬ এর একটি দল অভিযান চালায় তার পোল্ট্রি খামারে। এসময় পোল্ট্রি মুরগীর গাড়িতে মাদক পাচারের সময় হাতে নাতে ২২৬ বোতল ফেনসিডিল সহ তাকে আটক করে র‌্যাব। এবিষয়ে র‌্যাব-৬ এর সাতক্ষীরা ক্যাম্পের মেজর শামিম হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মফিজুল ইসলাম নামের একজনকে আটক করা হয়েছে। একই সাথে ২২৬ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা দায়ের হয়েছে।
উল্লেখ্য, গত- ০৯ তারিখ সংবাদ প্রকাশ হয় যে, দেবহাটা উপজেলার মাদক খ্যাত কুলিয়া ইউনিয়নের কুলিয়া, বহেরা, খাসখামার ও পুষ্পকাটি গ্রামে মাদক ব্যবসায়ীরা আবারো সক্রিয় হয়ে উঠেছে। কুলিয়া শহীদ মিনারের পিছনে, কুলিয়া মৎস্য সেডের নিচে, কুলিয়া বাজারের চার রাস্তার মোড়ে এখন প্রতিদিন সন্ধা থেকে রাত্রব্যাপী বিক্রি হচ্ছে গাঁজা, ফেনসিডিল সহ ঘাতক ব্যধি ইয়াবা। তবে এসব এলাকায় যারা মাদক ব্যাবসার সাথে আগে থেকে জড়িত ছিল মূলত তারা ও তাদের সন্তানেরা নতুন করে ফাকা মাঠে গোল দেওয়ার মতো মাদক ব্যাবসা চালিয়ে যাচ্ছে। এমন সংবাদের প্রকাশের পর পুলিশ সহ আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ধারাবাহিক অভিযান চালাতে থাকে। এর ফলে একে এক মাদক ব্যবসায়ী আটক হচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় বুধবার রাতে র‌্যাব-৬ এর একটি দল অভিযান চালিয়ে পোল্ট্রি খামার থেকে ২২৬ বোতল ফেনসিডিল সহ মফিজুল ইসলাম নামের একজন আটক করে। এছাড়া মঙ্গলবার পুলিশের অভিযানে বহেরার মোসলেম গাজীর পুত্র মাদক ব্যবসায়ী মনিরুল ইসলামকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
তবে, মাদক বিক্রির পিছনে একটি বিশেষ মহলের কিছু অসাধু লোক রয়েছে বলে মনে করেন অনেকে। এলাকার সচেতন মহলের দাবি, যেসকল ব্যক্তি কোন কাজ কর্ম করেনা অলস সময় কাটিয়ে বিভিন্ন মোড়ে বা বাজারে বসে বসে দিন পার করে কিভাবে তাদের সংসার চলে এবিষয়ে খেতিয়ে দেখার? তাছাড়া সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ তারা কামনা করেছেন। এছাড়া উপজেলার নওয়াপাড়া ইউনিয়নের হাদিপুর চার রাস্তার মোড়, নাংলা, নওয়াপাড়া, ছুটিপুর, দেবহাটা সদরের বসন্তপুর, সুশীলগাঁতী, টাউনশ্রীপুর, ভাতশালা এলাকায়ও বিশেষ অভিযান চালালে মাদক নির্মূল হবে বলে অনেকের ধারণা।