বিএনপি’র পন্থী সাংবাদিকরাই পুন:নির্বাচনে ধারাবাহিক অনৈতিকতারাই প্রমান দিয়েছে

0
431

বিজ্ঞপ্তি : গত ৩০ মে অনুষ্ঠিত খুলনা সিটি কর্র্পোরেশনের পুন:নির্বাচনে ইকবাল নগর সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বিএনপি-জামায়াত পন্থী সাংবাদিক কামরুল মনিকে নিয়ে বিএনপি ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের অপচেষ্টার প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। নেতৃবৃন্দ প্রতিবাদে বলেন, বিএনপি’র প্রেসক্রিপসনে তাদের (বিএনপিপন্থী) সাংবাদিকরা ইকবাল নগর সরকারী মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটারদের বিব্রত করতে তাদের আইডি কার্ড কেড়ে নিয়ে হয়রানি করেছে। যা সাংবাদিক নৈতিকতা পরিপন্থী। বিএনপি’র পন্থী সাংবাদিকরাই পুন:নির্বাচনে ধারাবাহিক অনৈতিকতারাই প্রমান দিয়েছে। যে কারনে স্থানীয় লোকজন এবং জনপ্রতিনিধি প্রশাসনের সহযোগিতায় ওই সকল সাংবাদিকদের নিবৃত করতে বলেছিলেন। নেতৃবৃন্দ বলেন, সুযোগ পেলেই বিএনপি যে ইলেকশন ইঞ্জিনিয়ারিং করতে চায় সেটি ৩০ মে’র নির্বাচনে আবার প্রকাশ করলেন। তারাই সেদিন তাদের পর্ন্থী সাংবাদিকদের দিয়ে নির্বাচনে ভোটারদের বিভ্রান্তি করে তাদের প্রার্থীকে বিজয়ী করার অপচেষ্টা করেছে ; সেদিনে সে চিত্রই প্রমান করে আরেকবার। নেতৃবৃন্দ এসব ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশ না করার জন্য বিএনপি’র নেতৃবৃন্দের প্রতি আহবান জানান। বিবৃতিদাতারা হলেন, কেন্দ্রিয় নেত্রী ও সাবেক মন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান এমপি, মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সাবেক মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক এমপি, খুলনা জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশীদ, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক হুইপ এস এম মোস্তফা রশিদী সুজা এমপি, কেন্দ্রিয় নেতা এস এম কামাল হোসেন, মহানগর আওয়ামী লীগ সাধারণ সাধারণ সম্পাদক ও ১৪দলের সমন্বয়ক আলহাজ্ব মিজানুর রহমান মিজান এমপি, শেখ হায়দার আলী, মো: মুন্সি মাহবুব আলম সোহাগ, দৌলতপুর থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ সৈয়দ আলী, সদর থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি এ্যাড. সাইফুল ইসলাম, খানজাহান আলী থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ আবিদ হোসেন, খালিশপুর থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি একেএম সানাউল্লাহ নান্নু, সোনাডাঙ্গা থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান বুলু বিশ্বাস, খালিশপুর থানা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মনিরুল ইসলাম বাশার, দৌলতপুর থানা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম বন্দ, সদর থানা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ফকির মোঃ সাইফুল ইসলাম, সোনাডাঙ্গা থানা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক তসলিম আহমেদ আশা, এস এম আনিছুর রহমান।