নির্বাচিত হলে জলাবদ্ধতা নিরসন করা হবে : খালেক

0
288

খুলনা টাইমস প্রতিবেদক:
খুলনা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক বলেছেন, ‘২০০৮ সালে আমি মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পর সিটি কর্পোরেশনের ১২ কোটি টাকা ঋণ পরিশোধ করে পরিকল্পিত ভাবে খুলনার উন্নয়ন করেছি। তারই অংশ হিসেবে খুলনা নগরীর জলাবদ্ধতা দূরীকরণে নানা পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছিল। যে পরিকল্পনার মধ্যে নগরী পরিবেষ্টিত ২২টি খালকে চিহ্নিত করে দখলমুক্ত করা হয়েছিলো। অধিকাংশ ক্ষেত্রে জলাবদ্ধতা নিরসন হয়েছিলো। ২০১৩ সাল থেকে গত ৫ বছরে আবারও খুলনা শহর পিছিয়ে পড়েছে। থমকে গিয়েছে খুলনার উন্নয়ন। তিনি নগরবাসিকে প্রতিশ্রুতি দিয়ে বলেন, নির্বাচনে আমি মেয়র নির্বাচিত হলে নগরীর জলাবদ্ধতা নিরসন নিশ্চিত করা হবে।’ এজন্য তিনি নৌকা প্রতীককে ভোট দিয়ে খুলনার উন্নয়ন কর্মকান্ড অব্যাহত রাখতে সকলের সহযোগিতা, দোয়া ও ভোট প্রার্থনা করেন।
শুক্রবার সকালে নগরীর ১৬নং ওয়ার্ডে গণসংযোগকালে তিনি এসব কথা বলেন। সকাল সাড়ে ৮টায় রায়েরমহল হামিদ নগর থেকে শুরু করে ওয়ার্ডে বিভিন্ন এলাকায় তিনি গণসংযোগ ও স্থানীয়দের সাথে মতবিনিময় করেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি কাজী এনায়েত হোসেন, নগর আওয়ামী লীগ নেতা শেখ হাসান ইফতেখার চালু, শেখ মোশাররফ হোসেন, অসিত বরণ বিশ্বাস, সোনাডাঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান বুলু বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক তসলিম আহমেদ আশা, কাজী মুজিবুল হক, শেখ ফারুক হাসান হিটলু, শেখ শাহাজালাল হোসেন সুজন, মো. নুর ইসলাম, ইউসুফ আলী খান, খুলনা সাংবাদিক ইউনিয়ন (কেইউজে)’র সাধারণ সম্পাদক মো. শাহ আলম, কাউন্সিলর প্রার্থী ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আবিদ উল্লাহ, সংরক্ষিত কাউন্সিলর প্রার্থী শেখ আমেনা হালিম বেবী, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা খন্দকার মো. বাহাউদ্দিন, আব্দুল কুদ্দুস, লোকমান হাকিম, শেখ আরিফ উল্লাহ, মুকুল, মো. শাহীন, রফিকুল ইসলাম সহ দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।
মেয়র প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেক ১৬ ও ১৭নং ওয়ার্ডের বয়রা বাজার, রায়ের মহল, পূজা খোলা, ইসলামিয়া কলেজ রোড, বয়রা কলেজ রোড, নিউ মার্কেট এলাকা, সোনাডাঙ্গা আবাসিক এলাকা, সোনাডাঙ্গা ময়লাপোতা এলাকা, সি এ্যান্ড বি কলোনী, করিমনগর সহ বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ করেন। এছাড়া তিনি বিভিন্ন সংগঠনের সাথে মতবিনিময় করেন।