দেবহাটায় চেয়ারম্যান প্রার্থী আলফা ও তার ভাই আলিম মেম্বরের বিরুদ্ধে চোরাচালান মামলা

0
39

দেবহাটা প্রতিনিধি : খুলনায় ১২ পিচ স্বর্ণের বার সহ আসামী আটকের ঘটনায় অলফা-আলিম দুই সহদরসহ ৪ জনের নামে মামলা হয়েছে। গত ২০ এপ্রিল খুলনার শহরের জিরো পয়েন্ট এলাকায় মাসুম বিল্লাহ নামের এক যুবকে ঢাকা থেকে ফেরার পথে তল্লাশি করে ১২পিচ স্বর্নের বারসহ আটক করে পুলিশ। এঘটনায় খুলনা লবণচরা থানার এসআই প্রদীপ বৈদ্য বাদি হয়ে একটি মামলা চোরাচালান দায়ের করেন । গ্রেফতারকৃত প্রধান আসামী মাসুম বিল্লাহ’র স্বীকারোত্তিতে সাবেক সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের সদস্য আল ফেরদাউস আলফা ২য় আসামী, আলফার ভাই আলিম মেম্বর ৩য় আসামী এবং শাখরা-কোমরপুর গ্রামের দাউদ আলীর ছেলে চোরাকারবারী,হত্যা,মাদকসহ একাধিক মামলার আসামী আলফার একান্ত সহযোগী আসাদুজ্জামান মিলনকে ৪র্থ আসামী হিসাবে নাম উল্লেখ করা হয়েছে। এছাড়া ঐ মামলায় প্রধান আসামী মাছুমের স্বিকার উক্তিতে আরো ৩/৪ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামী করেছে পুলিশ।
উল্লেখ্য যে, আল ফেরদাউস আলফা আসন্ন উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী এবং সাবেক জেলা পরিষদের সদস্য। আলফার বিরুদ্ধে সাতক্ষীরা সদর থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে জিআর-৮৬৪, মাদক নিয়ন্ত্রণের জিআর-৮৯৭, জিআর-৬০৮/০৯ সহ বিভিন্ন মামলা রয়েছে। এছাড়া আলিম মেম্বরের বিরুদ্ধে সদর থানায় জিআর-৮৬৪ মামলা দায়ের আছে। তাছাড়া আলফা ও আলিম মেম্বরের বিরুদ্ধে সীমান্তে চোরাচালান, মাদক, অস্ত্র, মানবপাচারের অভিযোগ রয়েছে। সীমান্তের চোরাঘাট নিয়ন্ত্রণ করেন তারা।
তবে মাসুম বিল্লাহ নামের এক যুবক আটকের পর থকে চেয়ারম্যান প্রার্থী আল ফেরদাউস আলফা সহ অন্যান্য আসামীরা এলাকা থেকে লাপাত্তা হয়েছেন। এমনকি তাদের ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি বন্ধ দেখাচ্ছে।