তেলিগাতীতে অভাবের তাড়নায় হতাশাগ্রস্থ যুবকের আত্মহত্যা

0
314

ফুলবাড়ীগেট (খুলনা) প্রতিনিধিঃ নগরীর আড়ংঘাটা থানাধিন তেলিগাতি উত্তরপাড়া এলাকায় অভাবের তাড়নায় হতাশাগ্রস্থ হয়ে বাবু(২২) নামের এক যুবক স্বজনদের উপর অভিমান করে আত্মহত্যা করেছে। নিহতের মৃত্যু রহস্যজনক হলেও প্রতিবেশিরা বলছে বেকার অবস্থায় সম্পর্ক করে বিয়ে করে অর্থ কষ্টের অভাবের তাড়নায় হতাশাগ্রস্থ হয়ে স্বজনদের উপর অভিমান করে সে আত্মাহত্যার পথ রেছে নিয়েছে। নিহত বাবুর লাশ ময়না তদন্ত শেষে শনিবার দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। নিহত বাবুর পরিবারের পক্ষ থানায় একটি সাধারণ ডায়রী করা হয়েছে। পুলিশ বাবুর স্ত্রী রুবিনা(১৮)কে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে।
নিহত বাবুর মামা জহুর জানান, তার ভাগ্নে বউ রুবিনার সাথে শুক্রবার সকালে ঝগড়াবিবাদ করে বিকাল ৪টায় ঘর থেকে রুবিনাকে বের করে দিয়ে যে রান্না ঘরে থাকতো সেখানে গলায় ওরনা পেচিয়ে আত্মহত্যা করে। রুবিনা ঘরের বেড়া কেটে গলার ওরনা কেটে চিৎকার দিলে বাড়ীর সকলে এসে তাকে ্ উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত্যু ঘোষনা করে। মৃত্যুর কারণ নিয়ে দ্বিমুখি বক্তব্য পাওয়ায় পুলিশ নিহতের স্ত্রী রুবিনাকে রাতে থানায় নিযে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ছেড়ে দিয়েছে। নিহতের মামা আরো জানান মাত্র ছয় মাস আগে তার ভাগ্নে সম্পর্ক করে বাড়ীর সকলের অমতে দুই পরিবারের সম্মতি ছাড়া তারা বিবাহ করে। বিবাহের পর তাদের মধ্যে সব সময় ঝগড়া বিবাদ লেগে থাকতো। তাছাড়া বেকার অবস্থায় বিবাহ করায় গরীর পরিবারের উপর তারা দুজন বোঝা হয়ে থাকায় প্রতিনিয়ত সে হতাশার মধ্যে নিজে আত্মহত্যা করার কথা বলতো। নিহত বাবু ফুলবাড়ীগেট এলাকার মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেনের কণ্যা রুবিনা খাতুন টিটিসি থেকে এ বছর এসএসসি পাশ করে । নিহত বাবু তার প্রাইভেট শিক্ষক ছিলেন।