তালার ক্ষতিগ্রস্থ টিআরএম ভেঁড়ীবাঁধ সংস্কারের দাবীতে আবারও মানববন্ধন

0
199

মোঃ রোকনুজ্জামান টিপু তালা,সাতক্ষীরাঃ

সাতক্ষীরা তালায় ঘূর্নিঝড় আম্ফানের ১ মাস অতিবাহিত হলেও ঘূর্নিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্থ টিআরএম ভেঁড়ী বাঁধ সংস্কার ও ফসলের ক্ষতি পূরনের দাবীতে আবারও মানববন্ধন করেছে ভুক্তভোগী এলাকাবাসী।বুধবার (২৪ জুন) সকালে জালালপুর গলা ভাংগা মাছের কাটা সংলগ্ন এলাকায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।এর আগে গত (২৬ মে)বেলা সাড়ে ১০টায় টিআরএম ভেড়ী বাঁধের পশ্চিম পার্শ্বে দোহার গলাভাঙ্গা এলাকায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। মানববন্ধন থেকে ৩দিনের মধ্যে কাজ শুরু না হলে থেকে ইউএনও,ডিসি অফিসসহ রাজপথ অবরোধের ঘোষনা দেওয়া হয়েছে।

ঘূর্নিঝড় আম্ফানের ১ মাস অতিবাহিত হলেও তালার পাখিমারা বিলের কপোতাক্ষ’র টিআরএম ভেঁড়ী বাঁধ আজও সংস্কার করা হয়নি। ফলে পার্শ্ববর্তী ৫ টি গ্রামের শতাধীক পরিবার আটকে পড়েছে জোয়ারÑভাটার ¯্রােতে। মসজিদ-মন্দির সহ জণগুরুত্বপূর্ণ রাস্তা চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় ভুক্তভোগী এলাকাবাসীর পক্ষে স্থানীয় সংসদ সদস্য এড,মুস্তফা লুৎফুল্লাহ, উপজেলা চেয়ারম্যান ঘোষ সনৎ কুমার প্রশাসনের উর্দ্ধত্বন কর্তৃপক্ষের নিকট বারবার আবেদন করলেও কোন পদক্ষেপ নেয়নি কর্তৃপক্ষ। এ ছাড়া ২০১১ – ২০২০ সাল পর্যন্ত টিআরএম চালু হলেও নামমাত্র জমির মালিকদের ২ বৎসরের ক্ষতিপূরণের টাকা দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। টিআরএম এর ক্ষতি পূরনের টাকা না পাওয়ায় অনাহারে-অনাদারে দিনাতিপাত করছে এলাকার কয়েক শত জমির মালিক ।

জালালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ রবিউল ইসলাম মুক্তির সভাপতিত্বে উক্ত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন , ওয়ার্কাস পার্টির কেন্দ্রীয় নেতা উপধ্যাক্ষ মহিবুল্লাহ মোড়ল, আরও বক্তব্য রাখেন , তালা উপজেলা ওয়ার্কাস পার্টির সভাপতি অধ্যাপক সরদার রফিকুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক হিরনময় মন্ডল, মাগুরা ইউপি মেম্বর মইনুল ইসলাম, ইউপি মেম্বর মনিরুজ্জামান মনি, সাতক্ষীরা জেলা জাসদ ছাত্রলীগের সেক্রেটারী আব্দুল আলীম, জালালপুর ইউনিয়ন জাতীয় পাটির সাধারন সম্পাদক মোঃ মকবুল হোসেন, জালালপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আসাদুজ্জামান সবুজ, ওয়ার্কাস পাটির নেতা প্রশান্ত গাইন, দেলোয়ার হোসেন, সমাজ সেবক আইয়ুব আলী শেখ, আব্দুল হান্নান প্রমুখ।

উক্ত মানববন্ধনে টিআরএম এর পাখিমারা বিলের প্রবেশমুখ সংস্কার অর্থাৎ বালিয়া বেলী ব্রিজের সামনে পশ্চিম পাশের ১নং প্রবেশমুখ বাঁধা, টিআরএম এর আওতায় জমির অধিগ্রহনের ক্ষতি পূরনের টাকা অতিদ্রæত প্রদান করা এবং টিআরএম এর ভেঁড়ীবাধের ১২ কিঃমিঃ বাঁধ সংস্কারের দাবী জানানো হয়।

এ বিষয়ে যশোর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী তৌহিদুল ইসলাম বলেন, আমার অফিসের লোকজন সাইড পরিদর্শন করেছে , আপাতাত ৩৫ হাজার টাকা বরাদ্ধ পাওয়া গেছে , শীগ্রই কাজ শুরু করা হবে।