ডুমুরিয়ার মির্জাপুরে সরকারি জমিতে নির্মান হচ্ছে পাকা দোকান ঘর

0
280

ডুমুরিয়া প্রতিনিধি:
ডুমুরিয়ার মির্জাপুর গ্রামে সুশান্ত বৈরাগীর বিরুদ্ধে সরকারী জায়গা দখল করে পাকা দোকান ঘর নির্মানের অভিযোগ উঠেছে। সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, উপজেলার মির্জাপুর মৌজার গুয়োতলা খালটি ভরাট হলে স্থানীয় রবিন সরদারের নামে ১ একর খাসজমি সরকারী নীতিমালা অনুযায়ী ২০০০ সালে বন্দোবস্ত পায়। পরবর্তীতে ওই বন্দোবস্তকৃত জমির মালিক রবিন সরদার খাসজমি নীতিমালা বহির্ভুতভাবে ২০০৩ সালের দিকে ১৫ শতক জমি পার্শ্ববতী সুশান্ত বৈরাগীর নিকট দখল হস্তান্তর করে। সম্প্রতি সেখানে তিনি ৪টি পাকা দোকান ঘর নির্মান কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন। এ প্রসঙ্গে সুশান্ত বৈরাগী জানান, রবিন সরদারের নিকট হতে বিনিময় করে আমরা এ জমিতে বহুকাল ধরে বসতবাড়ী করে ভোগ দখলে আছি। সেই সুবাদে ওই জমিতে আমি পাকা দোকান ঘর তৈরী করছি। এ ব্যাপারে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ নাজমুল হাসান বলেন, বিষয়টি শুনেছি, যাচাই বাছাই পূর্বক বিধিভাবে পরবর্তী ব্যবস্থা প্রহন করা হবে।