ডুমুরিয়ার গুটুদিয়ায় ব্রিধান-৫৮ জাতের নমুনা শস্য কর্তন

0
391

ডুমুরিয়া প্রতিনিধি
ডুমুরিয়া উপজেলা কৃষি স¤প্রসারণ অধিদপ্তরের আয়োজনে রোববার দুপুরে গুটুদিয়া ইউনিয়নের ঝিলেরডাংগা গ্রামে ব্রিধান-৫৮ জাতের নমুনা শস্য কর্তন অনুষ্ঠিত হয়। শস্য কর্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন খুলনা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পুলিশ সুপার এসএম শফিউল্লাহ (বিপিএম)।
কৃষি স¤প্রসারণ অধিদপ্তর খুলনার উপ-পরিচাক পংকজ কান্তি মজুমদার, জেলা প্রশিক্ষন অফিসার, (ডিএই) হাফিজুর রহমান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাঃ শাহানাজ বেগম, জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সজিব খান, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) সঞ্জিব দাস, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোঃ মোছাদ্দেক হোসেন, থানা অফিসার ইনচার্জ আমিনুল ইসলাম প্রমুখ। ঝিলেরডাংগা গ্রামের কৃষক পূর্ণেন্দু বিশ্বাসের ক্ষেতে ব্রিধান-৫৮ জাতের নমুনা শস্য কর্তন করা হয়। পরিসংখ্যানের সার্কেল পদ্ধতিতে এ নমুনা শস্য কর্তন করা হয়। ফলন ৭.৪৬ টণ/ হেঃ। কৃষক পূর্নেন্দু বিশ্বাস বলেন, এ বছর ফলন বিগত কয়েক বছরের তুলনায় অনেক ভাল হয়েছে, আমার এখানে স্যারেরা আসায় স্যারদের ধন্যবাদ।
উপজেলা কৃষি অফিসার মোঃ মোছাদ্দেক হোসেন বলেন, এবছর ডুমুরিয়াতে ২১ হাজার ২০৫ হেঃ জমিতে বোরো আবাদ হয়েছে, ফলনও খুব ভাল। এপর্যন্ত ৩৫% ধান কর্তন হয়েছে। আমরা কৃষকের সামাজিক দুরত্ব নিশ্চিত করার জন্য কৃষকের কাছে গিয়ে পরামর্শ দিচ্ছি। মূলত কৃষক যাতে তাদের ফসল ঘরে তুলতে পারে এজন্য আমরা কাজ করে যাচ্ছি।
কৃষি স¤প্রসারণ দপ্তরের উপ-পরিচালক পংকজ কান্তি মজুমদার বলেন, আমরা যান্ত্রীকীরনের জন্য ৫০% ভর্তুকীতে কৃষি যন্ত্রপাতি বিতরন করছি এবং কৃষকদের সার্বিক সহযোগিতা করছি। জেলা প্রশাসক, মোহাম্মদ হেলাল হোসেন বলেন, আমরা মূলত কৃষকের কোন সমস্যা আছে কিনা এবং তার সমাধান কী হতে পারে, সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করে কিভাবে ফসল উত্তোলন করা যায়, তা দেখার জন্য সরেজমিন কৃষকের কাছে যাচ্ছি এবং কর্তন পর্যন্ত আমাদের এ কর্মকান্ড অব্যাহত থাকবে।