ঝালকাটিতে বাপ-দাদার ভিটায় কাঁদছেন নচিকেতা, পুরনো ছবি ভাইরাল

0
201

টাইমস বিনোদন:
ঝালকাটিতে বাপ-দাদার মাটির ভিটায় শরীর ছড়িয়ে কাঁদছেন ভারতের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী নচিকেতা। অবাক হয়ে সেই দৃশ্য দেখছে মানুষজন। তাদের থামাতে হিমশিম খাচ্ছে পুলিশ। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন একটি ছবি ছড়িয়ে পড়েছে। তবে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এটি ছয় বছর আগের ঘটনা। ২০১৪ সালের নভেম্বরের মাঝামাঝি তিনি ঝালকাঠির কাঁঠালিয়া উপজেলার উত্তর চেঁচরী গ্রামে আসেন।

এর আগে ওই দিন হেলিকপ্টারে পিরোজপুরের ভা-ারিয়া শহরের বিহারি পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে অবতরণ করেন নচিকেতা। নচিকেতা ভা-ারিয়া বিহারি পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয় ঘুরে দেখেন। একসময় এ বিদ্যালয়ে নচিকেতার দাদু ললিত কুমার গাঙ্গুলী প্রধান শিক্ষক ছিলেন। বিদ্যালয়টি পরিদর্শন শেষে তিনি উপজেলা চেয়ারম্যানের গাড়িতে ভা-ারিয়া শহর থেকে সাড়ে চার কিলোমিটার দূরের চেচরীরামপুর গ্রামে তাঁর বাপ-দাদার গাঙ্গুলীবাড়িতে যান। নচিকেতা জানান, ১৯৪৫-৪৬ সালের দিকে অর্থাৎ ভারত ভাগের আগেই তার বাবা সবারঞ্জন চক্রবর্তী ও মা লতিকা চক্রবর্তী ভারতে চলে গিয়ে সেখানে স্থায়ীভাবে বসবাস শুর” করেন। তাদের ফেলে যাওয়া সে ভিটায় এখন মরিয়ম বেগম নামের এক মহিলা বসবাস করেন।

সেই জীর্ণদশার বাড়িটিতে মাথানত করে প্রায় ১০ মিনিট নীরবে বসে থাকেন তিনি। বলেন, এ মাটিতে বসার পর আর উঠতে মন চায় না। আমার বাবা-মা কেউ বেঁচে নেই। থাকলে তাঁদের সঙ্গে নিয়েই আসতাম। তখন তাঁর চোখের জল অন্যদেরও কাঁদিয়েছে।