খুলনা-গাজীপুরে আ’লীগ প্রার্থীকে ১৪ দলের সমর্থন : নাসিম

0
341

অনলাইন পতিবেদন : খুলনা ও গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগের প্রার্থীদের জোটের শরিকরা সমর্থন দিয়েছে। ফলে গাজীপুরে আওয়ামী লীগের জাহাঙ্গীর আলমের সঙ্গে মনোনয়নপত্র জমা দেয়া জাসদের রাশেদুল হাসান রানা মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেবেন। গতকাল শুক্রবার ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে জোটের শরিকদের সঙ্গে বৈঠক শেষে এই সিদ্ধান্তের কথা জানান ১৪ দলের মুখপাত্র আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ নাসিম।
স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘১৪ দল গাজীপুরে জাহাঙ্গীর আলম এবং খুলনায় তালুকদার আবদুল খালেককে বিজয়ী করতে এক সাথে হয়ে কাজ করবে। যদি কেউ এর মধ্যে বিদ্রোহী প্রার্থী থাকে তাহলে সময়মত তাদের মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নেবে। একই সাথে ১৪ দল ছোট পরিসরে কমিটি গঠন করে নির্বাচনী এলাকায় কাজ করবে।’
নাসিম বলেন, ‘যেহেতু সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনগুলো জাতীয় নির্বাচনের আগে, তাই মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে জয় করার জন্য দেশবাসীকে আহ্বান জানাব।’ উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থীদের বিজয়ী করার জন্য জনগণের প্রতিও আহ্বান জানান ১৪ দলের মুখপাত্র নাসিম।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি নেত্রীর আদালতের মাধ্যমে জেলে গিয়েছেন। আদালতের মাধ্যমেই তিনি বের হবেন। আমরা চাই তারা আগামী নির্বাচনে আসুক।’
অন্যদিকে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশে অভ্যুত্থান করার মতো কোনো পরিবেশ সৃষ্টি হয়নি। বিএনপি’র চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য রাজপথে আন্দোলন করে কোনো লাভ নেই বলেও তিনি মন্তব্য করেন। গতকাল শুক্রবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটি আয়োজিত অনুষ্ঠানে কাদের এসব কথা বলেন।
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী কাদের বলেন, একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে আর সংবিধান সংশোধন হবে না। এ সময় তিনি বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে দেশে এসে আইনের মুখোমুখি হওয়ার পরামর্শ দেন।
ছাত্রলীগ বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, এ ছাত্রসংগঠনের কিছু কর্মকাণ্ড তাঁকে বিব্রত করে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে আগামী কাউন্সিলে ছাত্রলীগকে ঢেলে সাজানো হবে। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, ছাত্রলীগকে নিয়ে আমরা নতুন করে ভাবছি। আমাদের ছাত্রলীগের সম্মেলন আছে, আপনারা জানেন। সেই সম্মেলনে আমরা নেতৃত্ব গঠনের দিক দিয়ে এবং ছাত্রলীগকে নতুন মডেলে কাজ করার একটা নির্দেশনা নেত্রীর আছে, আমরা সেই লক্ষ্যে এগিয়ে যাচ্ছি। একটু ধৈর্য ধরুন। চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিমের (রনি) বিষয়ে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হবে কি না, জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এ ব্যাপারে আমাদের অবস্থান অত্যন্ত পরিষ্কার। ছাত্রলীগ হোক, আওয়ামী লীগ হোক। অপকর্ম করে কেউ পার পেয়ে যেতে পারেনি। এখানে শেখ হাসিনা কঠোর অবস্থানে। কোন অপরাধের শাস্তি হয়নি বলুন? অপরাধ করে পার পেয়ে যায়, এই কালচার আওয়ামী লীগে নেই, বিএনপিতে থাকতে পারে।