খুলনা উন্নয়ন কমিটির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

0
166

খবর বিজ্ঞপ্তি:
বৃহত্তর খুলনা উন্নয়ন সংগ্রাম সমন্বয় কমিটির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা শনিবার বেলা ১১টায় স্থানীয় একটি চাইনিজ রেস্তোরায় সভাপতি আলহাজ্ব শেখ মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে ও সহ-সভাপতি শাহীন জামান পনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত হয়। সভার শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াতের পর সভাপতি স্বাগত বক্তব্য রাখেন। সভায় শোক প্রস্তাব উপস্থাপন করেন সিনিয়র সহ-সভাপতি মোঃ নিজাম উর রহমান লালু। শোক প্রস্তাবে মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের কাছে বাগেরহাট-১ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য শেখ হেলাল উদ্দিন, খুলনা-২ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য সেখ সালাহউদ্দিন জুয়েল ও বিসিবি’র পরিচালক শেখ সোহেল উদ্দিনের মাতা প্রয়াত বেগম রিজিয়া নাসেরসহ উন্নয়ন কমিটির প্রয়াত সকল সদস্যের আত্মার মাগফেরাত কামনা করা হয়। সভায় মহাসচিব শেখ আশরাফ উজ জামান দ্বি-বার্ষিক প্রতিবেদন পেশ করেন এবং প্রতিবেদনের উপর আলোচনা-পর্যালোচনান্তে সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হয়। সভায় কার্যকরী কমিটি কর্তৃক গঠিত প্রধান নির্বাচন কমিশন মোঃ ফজলুর রহমান ও সদস্য মোঃ আবুল কাশেম আলী রেজা বাচ্চু, শেখ হাফিজুর রহমান হাফিজ, চৌধুরী রায়হান ফরিদকে নিয়ে ৫ সদস্য বিশিষ্ট নির্বাচন পরিচালনা কমিটি অনুমোদন করা হয়। সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন সাবেক মন্ত্রী ও খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেনÑসাবেক সাংসদ নজরুল ইসলাম মঞ্জু, আওয়ামী লীগের মহানগর সাধারণ সম্পাদক এমডি এ বাবুল রানা, খুলনা সিটি কর্পোরেশনের সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র আনিসুর রহমান বিশ্বাস, জাতীয় পার্টির এড. মঞ্জুর-উল আলম, সিপিবি’র মিজানুর রহমান বাবু, ন্যাপ নেতা মোঃ ফজলুর রহমান, বিজিএএমসি সভাপতি শেখ সৈয়দ আলী, অধ্যক্ষ পরিষদের সভাপতি মাজহারুল হান্নান, দৈনিক সময়ের খবরের সম্পাদক মোঃ তরিকুল ইসলাম, রূপান্তরের নির্বাহী পরিচালক স্বপন কুমার গুহ, জেলা পরিষদের সদস্য চৌধুরী মোঃ রায়হান ফরিদ, কাউন্সিলর শেখ হাফিজুর রহমান হাফিজ, মোঃ রেজাউল হক, আসাদুজ্জামান মুরাদ, উন্নয়ন কমিটির সহ-সভাপতি কাউন্সিলর জেড এ মাহমুদ ডন, মিনা আজিজুর রহমান, শেখ আবুল কাশেম, মামনুরা জাকির খুকুমনি, অধ্যাপক শেখ আবুল বাশার, এস এম দাউদ আলী, অধ্যক্ষ শেখ রেহেনা আক্তার, উন্নয়ন কমিটির যুগ্ম মহাসচিব এড. শেখ হাফিজুর রহমান হাফিজ, মনিরুজ্জামান রহিম, আফজাল হোসেন রাজু, মিজানুর রহমান জিয়া, কাউন্সিলর শেখ মোহম্মদ আলী, সৈয়দ এনামুল হাসান ডায়মন্ড, রসু আক্তার, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আবু জাফর, সরদার রবিউল ইসলাম, আয়কর বারের সভাপতি এড. লুৎফর রহমান, শেখ মোশাররফ হোসেন, এস এম ইকবাল হোসেন বিপ্লব, জোবায়ের আহমেদ জবা, শেখ আবিদ উল্লাহ, সাংবাদিক এইচ এম আলাউদ্দিন, মোঃ রাশিদুল ইসলাম, আলহাজ্ব মিজানুর রহমান টিংকু, মোঃ মনিরুল ইসলাম (মাস্টার), তপন কুমার রায়, আহম্মদ আলী, ইঞ্জিনিয়ার রফিকুল ইসলাম সরদার, মীর বরকত আলী, মোঃ খলিলুর রহমান, অধ্যাপক মোঃ আজম খান, রকিব উদ্দিন ফারাজী, সৈয়দ নওসাদুজ্জামান পল্টু, আজিম উর রহমান মুরাদ, শেখ মোঃ আবু হানিফ, এস এম দেলোয়ার হোসেন, আব্দুস সালাম শিমুল, খান ইদ্রিস আলী, মোঃ হাফিজুর রহমান চৌধুরী, মোঃ আমিনুল ইসলাম, শেখ আব্দুস সালাম, শেখ জিয়াউর রহমান বাবুসাহেব, নুরুজ্জামান খান বাচ্চু, শামসুল কাদের মজনু, আরজুল ইসলাম আরজু, মোল্লা মারুফ রশীদ, আলহাজ্ব আররাফী নাজু, আলজামাল ভূইয়া, বিশ্বাস জাফর আহমেদ, সাংবাদিক শেখ শামসুদ্দিন দোয়া, মোঃ ফেরদৌস হোসেন লাবু, সরদার জিহাদুল ইসলাম প্রমুখ। দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় বৃহত্তর খুলনা উন্নয়নের লক্ষ্যে ১৮টি খাত চিহ্নিত করে ১৮ দফা দাবী সম্মলিত ঘোষণাপত্র তৈরি করে ন্যায়সঙ্গত দাবীর স্বপক্ষে আন্দোলন সংগ্রাম পরিচালনার ঘোষণা করা হয়। আরও বলা হয়, বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সময়কালে উল্লেখযোগ্য উন্নয়ন হয়েছে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে। তার ধারাবহিকতা পদ্মাসেতু, পায়রা বন্দর, মংলা বন্দরের উন্নয়ন, খুলনা-মংলা রেল লাইন, বিভাগীয় স্টেডিয়াম, শেখ হাসিনা মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা ওয়াসা ও খুলনা সিটি কর্পোরেশনের আধুনিক বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, জলাবদ্ধতা নিরসন এবং সড়ক ব্যবস্থাপনা উন্নয়ন, বিমান বন্দর ও পাইপ লাইনে গ্যাস সরবরাহ-সহ চলতি প্রকল্পগুলোর কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার দাবী জানানো হয়।