খুলনায় প্রথমবার ডিজিটাল কার্নিভাল অনুষ্ঠিত

0
343

তথ্যবিবরণী : ডিজিটাল কার্নিভাল-২০১৮ শনিবার সকালে খুলনা নর্দান ইউনিভার্সিটি অব-বিজনেস এন্ড টেকনোলজি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য মুহাম্মদ মিজানুর রহমান।

প্রধান অতিথির বক্তৃতায় সংসদ সদস্য বলেন, শেখ হাসিনার সরকার ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপকার। তরুণ ছেলেমেয়েরা যাতে অনুপ্রাণিত হয় তাদের উদ্বুদ্ধ করণের জন্যই এ ডিজিটাল কার্নিভাল। তিনি বলেন, আমাদের তরুণ প্রজন্মের মাঝে যে মেধা রয়েছে তা উপযুক্ত পৃষ্ঠপোষকতা পেলে প্রযুক্তিগত উৎকর্ষতার মাধ্যমে কর্মসংস্থানের ব্যাপক ভূমিকা রাখবে।

নর্দান ইউনিভার্সিটি অব-বিজনেস এন্ড টেকনোলজির উপাচার্য প্রফেসর ড. আবু ইউসুফ মোঃ আবদুল্লাহ এতে সভাপতিত্ব করেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেডিএর চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ আহমেদুল কবীর এনডিসি। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রফেসর ড. নুরুন্নবী মোল্ল্যা, প্রফেসর ড. এমএমএ হাসেম, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. কামরুল হাসান তালুকদার এবং কম্পিউটার সাইন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. এটিএম জহিরউদ্দিন প্রমূখ।

আয়োজনের মধ্যে ছিলো বর্ণাঢ্য র‌্যালি, কম্পিউটার প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা, অনলাইন গ্রেমিং এবং আইটি বিষয়ক প্রজেক্ট উপস্থাপন ও প্রতিযোগিতা। এতে দেশের প্রায় ৩০টির অধিক স্বনামধন্য আইটি প্রতিষ্ঠান বিভিন্ন আধুনিক ডিজিটাল ধারণা সম্পর্কিত প্রজেক্ট উপস্থাপন করা হয়। ডিজিটাল কার্নিভাল এর অনুষ্ঠানমালা ‘আমরা নেটওয়ার্ক’ এর সহযোগিতায় যশোর শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কের সাথে সরাসরি সংযুক্ত হয় এবং সেখানে অবস্থিত সকল আইটি প্রতিষ্ঠান অনলাইনে কার্নিভালে অংশ গ্রহণ করে যা অনুষ্ঠানে এক ভিন্ন মাত্রা যোগ হয়।

খুলনা অঞ্চলের বিভিন্ন স্কুল-কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় তিনশতাধিক শিক্ষার্থী বিভিন্ন আইটি বিষয়ক প্রতিযোগিতা ও কর্মশালায় অংশ গ্রহণ করে। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদের ডীন, বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও ছাত্রছাত্রীরা স্বত:স্ফূর্তভাবে এসকল অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ করে। খুলনায় প্রথম বারের মতো ডিজিটাল কার্নিভাল অনুষ্ঠিত হয়।