খুলনায় তাঁজা বোমা, গাঁজা ও বোমা তৈরীর সরঞ্জাম উদ্ধার : আটক ৩

0
438

ফুলবাড়ীগেট (খুলনা) প্রতিনিধি:
নগরীর দৌলতপুর থানাধীন মহেশ^রপাশা রানার মাঠ এলাকা থেকে পুলিশ ৩টি তাজা ককটেল, বোমা তৈরীর সরঞ্জাম এবং ২শ৫০ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার করেছে। এই ঘটনায় পুলিশ তিন জনকে আটক করছেন।
পুলিশ জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দৌলতপুর থানার ওসি মোঃ হুমায়ুন কবিরের নেতৃত্বে এ এস আই আবু মুছাসহ সঙ্গিয় ফোর্স শনিবার রাত ১১ টায় মহেশ^রপাশা রানার মাঠ আমিরাবাদ লেন এলাকার ইলু বেগমের বাড়ীর ভাড়াটিয়া মোঃ রুবেল শেখের ঘরে তল্লাশী চালিয়ে ৩টি তাঁজা ককটেল, ৪৫ গ্রাম গানপাউডার, ৪৮০পিচ কাঁচের মার্বেল,২পিচ ব্যাটারী, এক বান্ডিল বৈদ্যুতিক তার, ১টি প্লাসসহ বোমা তৈরীর সরঞ্জাম এবং ২শ৫০ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার করা হয়। এ সময় মহেশ^রপাশা রানার মাঠ এলাকার মজিবর শেখের পুত্র মোঃ রুবেল শেখ(৩২), তার স্ত্রী সাজেদা বেগম (৩০) এবং ছলেমানের পুত্র মাসুম(২৩)কে আটক করে। আটককৃত রুবেল উপস্থিত সাংবাদিকরা ছবি তোলার সময়ে বলেন তার স্ত্রী নিরাপরাধ তাদের বিরুদ্ধে এটা ষড়যন্ত্র। এ ব্যাপারে দৌলতপুর থানার অফিসার্স ইনচার্জ মোঃ হুমায়ুন কবির জানান, আমাদের কাছে খবর আসে মহেশ^পাশায় একটি বাড়ীতে বোমা তৈরী করা হচ্ছে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে রাত ১১ টায় রুবেলের বাড়ীর চতুর দিক ঘিরে ফেলে তার ঘরে তল্লাশী চালানো হয়। দুই থেকে আড়াই ঘন্টার অপারেশনে রুবেলের ঘর থেকে বোমা, বোমা তৈরীর সরঞ্জাম এবং গাঁজা উদ্ধার করা হয়। এ সময় তার স্ত্রী ও সহযোগি মাসুম কে আটক করা হয়। আটক সাজেদার বিরুদ্ধে খানজাহান আলী থানার মাদক দ্রব্য আইনে একটি মামলা এবং রুবেলের বিরুদ্ধে দৌলতপুর ও খানজাহান আলী থানায় দুটি মাদক মামলা রয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে বিষ্ফোরক দ্রব্য এবং মাদক দ্রব্য আইনে মামলা হয়েছে। আটককৃতদের সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে প্রেরন করা হয়েছে। এই ঘটনায় দৌলতপুর থানায় বিষ্ফরোন দ্রব্য আইনের এবং মাদক দ্রব্য আইনে দুটি মামলা হয়েছে। মামলা নং ১৮ ও ১৯ তাং ১৮/৩/১৮।