খুলনায় ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপিত

0
360

নিজেস্ব প্রতিবেদক:
নানা আয়োজনে খুলনায় আজ ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপিত হলো । বাংলাদেশের স্বাধীনতার ইতিহাসে চিরস্মরণীয় এই দিবসের পটভূমি ও তাৎপর্যের ওপর আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে খুলনা জেলা প্রশাসন।
মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নগরীর শহীদ হাদিস পার্কে ‘ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় মুখ্য আলোচক ছিলেন এ্যাডভোকেট এনায়েত আলী। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন খুলনা জেলা প্রশাসক মো. আমিন উল আহসান।
আলোচনা সভায় অতিথিরা বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম এবং মুক্তিযুদ্ধের দীর্ঘ পথ পরিক্রমায় ১৭ এপ্রিল এক অনন্য দিন। ১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে রাষ্ট্রপতি এবং তাজউদ্দিন আহমেদকে প্রধানমন্ত্রী করে নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের সমন্বয়ে স্বাধীন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার গঠিত হয়। বাংলাদেশের প্রথম সেই সরকার ১৯৭১সালের ১৭ এপ্রিল মেহেরপুর জেলার বৈদ্যনাথতলায় শপথ গ্রহণ করে এবং স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র অনুমোদন করে। সেদিন থেকে এ স্থানটি ‘মুজিবনগর’ এবং এ দিনটি ‘মুজিবনগর দিবস’ নামে পরিচিতি লাভ করে।
দিবসটির তৎপর্য তুলে ধরে আলোচকরা বলেন, ১৯৭১ সালের ১৬ মার্চে বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা ঘোষণার মধ্যদিয়ে যে সশস্ত্র সংগ্রাম শুরু হয়েছিল, ১৭এপ্রিল মুজিবনগর সরকারের শপথ গ্রহণের মধ্যদিয়ে সেই সংগ্রাম ও সরকার পরিচালনা প্রাতিষ্ঠানিক রূপ লাভ করে। বিশ্ববাসী সমর্থন ও সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয়।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্তিত ছিলেন সাবেক মহানগর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার অধ্যাপক আলমগীর কবির, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার সরদার মাহবুবার রহমান এবং মুক্তিযোদ্ধা মকবুল হোসেন মিন্টু।
দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে খুলনা জেলা তথ্য অফিস বয়রা শিশু বিকাশ কেন্দ্রে রচনা ও কুইজ প্রতিযোগিতা এবং বিভিন্ন স্পানে চলচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করে। এছাড়া বাংলাদেশ বেতার খুলনা এবং বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরে বিশেষ অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করে।