খুবি উপাচার্যের শোক

0
306

খবর বিজ্ঞপ্তি:
খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের এগ্রোটেকনোলজি ডিসিপ্লিনের প্রফেসর ড. শামীম আহমেদ কামাল উদ্দিন খানের পিতা এ্যাডঃ শামসুল ইসলাম খান শনিবার দিবাগত রাত ১০টায় ময়মনসিংহ শহরস্থ নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহে … রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৮৬ বছর। তিনি স্ত্রী এবং ৩ পুত্রসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণাগ্রাহী রেখে গেছেন। তিনি বেশ কিছুদিন যাবত বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। ময়মনসিংহ আইনজীবী সমিতির কার্যালয়ের সামনে প্রথম জানাজা এবং বাদ আসর নেত্রকোনা জেলার কেন্দুয়া উপজেলায় উত্তরাটি গ্রামে দ্বিতীয় জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হয়।
খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান বিশ্ববিদ্যালয়ের এগ্রোটেকনোলজি ডিসিপ্লিনের প্রফেসর ড. শামীম আহমেদ কামাল উদ্দিন খানের পিতার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। এক শোক বার্তায় তিনি মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করে শোকসন্তপ্ত পরিবারবর্গের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন। অনুরূপভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর সাধন রঞ্জন ঘোষ, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস, ডিসিপ্লিন প্রধান প্রফেসর ড. সরদার শফিকুল ইসলামসহ সংশ্লিষ্ট ডিসিপ্লিনের শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ শোক প্রকাশ করেছেন। এছাড়া খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ সারওয়ার জাহান এবং সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর মোঃ শরীফ হাসান লিমন পৃথক বিবৃতিতে অনুরূপ শোক প্রকাশ করেছেন।
অপরদিকে, উপাচার্য বিশ্ববিদ্যায়ের অর্থ ও হিসাব বিভাগের প্রাক্তন উপ-পরিচালক অমর কুমার দাসের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ৯টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। তিনি এদিন সকালে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হন।