কেসিসি শিক্ষা বিস্তারেও ভূমিকা রাখছে : মেয়র

0
291
সংবাদ বিজ্ঞপ্তি : খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান বলেছেন, কেসিসি নগরীর উন্নয়নে শুধু কাজ করছে না, পাশাপশি নগরীতে শিক্ষা বিস্তারেও ভূমিকা পালন করছে। এ জন্য বিদ্যমান শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সাথে সাথে আরো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলা হচ্ছে। শিক্ষার মানোন্নয়নের ওপর বেশী গুরুত্বারোপ করা হচ্ছে বলে তিনি উল্লেখ করে বলেন, প্রায় সাড়ে ১২ কোটি টাকা ব্যয়ে আধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্বলিত  খালিশপুর কলেজিয়েট গার্লস স্কুল নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে যা এ অঞ্চলের নারী শিক্ষা বিস্তারে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখবে।
সিটি মেয়র শনিবার সকাল ১০টায় কেসিসি পরিচালিত নয়াবাটী হাজী শরিয়ত উল্লাহ বিদ্যাপীঠের বার্ষিক পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করছিলেন। তিনি প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার মান বজায় রাখার জন্য শিক্ষকদের প্রতি আহবান জানান এবং বিদ্যমান সমস্যাসমূহ বর্তমান পরিষদের নেতৃত্বে দ্রুত সমাধান করা হবে বলে আশ্বাস দেন। তিনি নিজেকে উপযুক্ত ও যোগ্য হিসেবে গড়ে তুলতে মনোযোগ সহকারে শিক্ষা গ্রহণে ব্রতী হওয়ার জন্য শিক্ষার্থীদের প্রতি আহবান জানান।
স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা কেসিসি সাবেক কাউন্সিলর শেখ খায়রুজ্জামান খোকা’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্থানীয় শিক্ষানুরাগী কাজী শাফায়েত হোসেন প্যারেট, মনিরুল ইসলাম, কাজী তালাত হোসেন কাউট, আব্দুল খালেক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। স্বাগত বক্তৃতা করেন স্কলের প্রধান শিক্ষক শেখ জাহিদুজ্জামান। অনুষ্ঠানে শিক্ষক-শিক্ষিকা ও অভিভাবকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
সিটি মেয়র শিক্ষার্থীদের মাঝে ফলাফল পত্র এবং কৃতী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন।
বেলা ১১টায় সিটি মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান কেসিসি পরিচালিত সিটি গার্লস স্কুলে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে স্কুলের বার্ষিক পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করেন এবং কৃতী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন। কেসিসি’র সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর মাহমুদা খাতুন-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে স্কুল ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্য আরুজুল ইসলাম আরজু, ইকবাল হোসেন খোকন, মহিউদ্দিন টারজানসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও অভিভাবকগণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। স্বাগ বক্তৃতা করেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক শাহ মোঃ জিয়াউর রহমান স্বাধীন। #