একযোগে কেএমপি’র পাঁচ থানায় সাড়াশি অভিযানে গ্রেফতার ১৮

0
427

স্টাফ রিপোর্টার:
মাদক নির্মূলে বিক্রেতাদের ধরতে একযোগে নগরীর পাঁচটি থানায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করছে খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি)। অভিযানে ১৮ জন বিক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সেই সাথে ২৮৩ পিস ইয়াবা, ১ কেজি ৩৫০ গ্রাম গাঁজা ১শ বোতল ফেনসিডিল ও দেশি বিয়ার উদ্ধার করেছে পুলিশ।
রোববার বিকেলে আকর্ষিকভাবে বিকেল ৩টা থেকে ৬টা পর্যন্ত এই অভিযান চালানো হয়। সদর, সোনাডাঙ্গা, খালিশপুর, দৌলতপুর ও খানজাহান আলী থানার একাধিক মাদক স্পটে স্ব স্ব থানার পুুলিশ এই অভিযান পরিচালনা করে।
এবিষয়ে কেএমপি’র মিডিয়া উইং এডিসি সোনালী সেন জানান, ১ম রমজান থেকেই মাদক নির্মূলে বিশেষ অভিযান চলছে। প্রত্যেক থানায় পৃথকভাবে অভিযান চালানো হয়েছে। তবে প্রথমবারের মত রোববার একযোগে কেএমপির ৫টি থানায় সাড়াশি অভিযান চালিয়ে ১৮ জন মাদক বিক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এসময় তাদের কাছ থেকে বিপুল পরিমান মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়েছে।
সোনাডাঙ্গা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মমতাজুল হক জানান, নগরীর সোনাডাঙ্গা ময়লাপোতা বস্তি, বয়রা পূজা খোলা ও নিউমার্কেট এলাকায় অভিযান আকর্ষিক অভিযান চালানো হয়। এসময় হরিজন কলোনী থেকে মাদক বিক্রেতা মজিবর ওরফে হ্যারীকে (২২) ও বি কে লাল ওরফে বিকুকে (৫০) গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছে ৫০ গ্রাম করে গাঁজা পাওয়া যায়। এছাড়াও বয়র পূজাখোলা ও কেডিএ স্টাফ কোয়ার্টার (বাটার মোড়ে) এলাকায় পৃথক অভিযান চালিয়ে ফাতেমা খাতুন চুমকী (২৩) ও সুবজকে (২৫) গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছে ১০ পিস করে ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া যায়।
দৌলতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী মোস্তাক জানান, দৌলতপুর থেকে মানিক তলা পর্যন্ত বিভিন্ন মাদক স্পটে অভিযান চালানো হয়েছে। এসময় কয়েকটি মদের দোকান ভেঙ্গে দেওয়া হয়েছে। সেই সাথে চিহ্নিত কয়েক জন বিক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়াও আমতলা মোড়, মিনাক্ষি মোড় ও দৌলতপুর বাজারেও অভিযান চালানো হয়েছে। অভিযানে রেলিগেট এলাকা থেকে ১শ গ্রাম গাঁজাসহ বিক্রেতা কামাল হোসেনকে (৩৩), মানিকতলা থেকে বিল্লাহ ওরফে কানা বিল্লাকে (৪০) ৫৩ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার করা হয়েছে।
সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ হুমায়ুন কবীর জানান, দক্ষিণ টুটপাড়া, ৫নং মাছ ঘাট এলাকা ও রূপসা ঘাটে অভিযান চালিয়ে ১২ জন সেবনকারী ও বিক্রেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। দক্ষিণ টুটপাড়া শরীফা কলোনী থেকে ৫০ গ্রাম গাঁজাসহ বিক্রেতা রাসেল মোল্লা (২৪) , ৫নং মাছ ঘাট এলাকা থেকে ৩০ পিস ইয়াবাসহ বিক্রেতা জুয়েলকে (১৯) গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়াও একই এলাকা থেকে রায়হান (২০), মালেক (৩২), মামুন শেখ (১৮) ও টুটপাড়া দারোগার বসতি থেকে মিরাজ খান, নুলাই শেখ ও সাইফুল ইসলাম নামে সেবনকারী গ্রেফতার করা হয়েছে।
খানজাহান আলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ লিয়াকত আলী জানান, ইস্টার্ন জুট মিল কলেনাী ও বিহারী কলোনীতে অভিযান চালানো হয়। এসময় ৫০ গ্রাম গাঁজাসহ ১ জনকে গ্রেফতার করা হয়।
খালিশপুর থানার এস আই কাজী বাবুল হোসেন জানান, কাশিপুর থেকে শুরু করে ক্রিসেন্ট জুট মিল ও কাদের সরদার বসতি এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এসময় ক্রিসেন্ট জুট মিল থেকে ২৫ পিস ইয়াবাসহ সোহেল শেখ (২৪), খালিশপুর শিয়া মসজিদ এলাকা থেকে ১৮ পিস ইয়াবাসহ আলমগীর হোসেন (৩০) ও টিএন্ডটি গেট এলাকা থেকে ২৩ পিস ইয়াবাসহ বিক্রেতা মোঃ ওয়াহিদ সিদ্দিকী পরশকে (৪০) গ্রেফতার করা হয়েছে।