অগ্রগতি ছাড়াই শেষ হলো যুক্তরাষ্ট্র-ইরানের পরোক্ষ আলোচনা

0
215
অগ্রগতি ছাড়াই শেষ হলো যুক্তরাষ্ট্র-ইরানের পরোক্ষ আলোচনা

টাইমস বিদেশ: ২০১৫ সালের পারমাণবিক চুক্তি ফের সক্রিয় করার লক্ষ্যে অনুষ্ঠিত হওয়া যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যকার পরোক্ষ আলোচনা শেষ হয়েছে। মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, কোনও অগ্রগতি ছাড়াই আলোচনা শেষ হয়েছে। গত বুধবার রাতে মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয় ইরান এমন সব ইস্যু তুলেছে যার সঙ্গে জেসিপিওএ’র (২০১৫ সালের পারমাণবিক চুক্তি) কোনও সম্পর্ক নেই আর দৃশ্যত মনে হয়েছে তারা চুক্তি পুনরুদ্ধার করতে চায় নাকি তা সমাহিত করে ফেলতে চায় সেই বিষয়ে মৌলিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য তারা প্রস্তুত নয়। ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) মধ্যস্ততায় কাতারের রাজধানী দোহায় অনুষ্ঠিত হয় ওই আলোচনা। দুই দিনের পরোক্ষ আলোচনায় অংশ নেন ইরান ও যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা। মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘দোহাতে পরোক্ষ আলোচনা শেষ হয়েছে, আর আমরা ইইউ এর প্রচেষ্টার জন্য অত্যন্ত কৃতজ্ঞ হলেও, ইরান আবারও ইইউ-এর উদ্যোগে ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া জানাতে ব্যর্থ হওয়ায় আমরা হতাশ আর সেকারণেই কোনও অগ্রগতি হয়নি’। এর আগে গত বুধবার ইইউ দূত এনরিক মোরা এক টুইট বার্তায় লেখেন, আলোচনা ‘সমন্বয়ক হিসাবে ইইউ দল যা আশা করেছিল’ তেমন অগ্রগতি হয়নি। তিনি বলেন, ‘আমরা উত্তেজনা নিরসন এবং আঞ্চলিক স্থিতিশীলতার জন্য মূল চুক্তিকে ফিরিয়ে আনার জন্য আরও বেশি প্রয়োজনীয়তার সঙ্গে কাজ চালিয়ে যাবো’। এনরিক মোরার সমন্বয়ে মঙ্গলবার আলোচনা শুরু হয়। এতে অংশ নেন ইরানের মুখ্য আলোচক আলি বাগেরি কানি এবং ওয়াশিংটনের ইরান বিষয়ক বিশেষ দূত রব ম্যালে। উল্লেখ্য,২০১৫ সালে ছয় বিশ্ব শক্তির সঙ্গে পরমাণু চুক্তি করে ইরান। চুক্তির আওতায় তেহরান পরমাণু কার্যক্রম সীমিত করার প্রতিশ্রæতি দেয় আর এর বিনিময়ে ইরানের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়। তবে ২০১৮ সালে চুক্তিটি থেকে একতরফা ভাবে বের হয়ে যায় যুক্তরাষ্ট্র। একই সঙ্গে ইরানের ওপর আরোপ করে কঠোর নিষেধাজ্ঞা। সূত্র: আল জাজিরা