সিঙ্গাপুরে জুম ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা

0
41

খুলনাটাইমস আইটি: শিক্ষকদেরকে ভিডিও-কনফারেন্সিং অ্যাপ জুম ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সিঙ্গাপুরের শিক্ষা মন্ত্রণালয়। লকডাউন ঘোষণার এক সপ্তাহের মধ্যে অ্যাপটিতে ‘গুরুতর কিছু ঘটনার’ পর এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটি।
সিঙ্গাপুরে লকডাউনের মধ্যেই শিক্ষকরা জুমে পাঠ নেওয়ার সময় ঘটেছে বেশ কিছু অপ্রত্যাশিত ঘটনা। ভূগোল পাঠের সময় ভিডিও কনফারেন্সে পর্দায় দেখানো হচ্ছে ‘অশালীন ছবি’ এবং অপরিচিত কেউ এসে ‘অশ্লীল মন্তব্য’ করার ঘটনাও ঘটেছে বলে বার্তাসংস্থা রয়টার্স উল্লেখ করেছে প্রতিবেদনে।
লকডাউনের বাস্তবতায় বিশ্বজুড়েই অনলাইনে শিক্ষা কার্যক্রম চালাচ্ছে বিভিন্ন স্কুল। আর এর জন্য অনেক ক্ষেত্রেই শিক্ষকরা ব্যবহার করছেন জুম ভিডিও কনফারেন্সিং অ্যাপটি।
ঘটনার বিস্তারিত না জানিয়ে সিঙ্গাপুরের মন্ত্রণালয়ের শিক্ষা প্রযুক্তি বিভাগের অ্যারন লো বলেন, “এগুলো খুবই গুরুতর ঘটনা। শিক্ষা মন্ত্রণালয় এখন দুইটি ঘটনাই তদন্ত করছে এবং প্রয়োজনে পুলিশের কাছে অভিযোগ করা হবে।”
“সতর্কতা হিসেবে এই নিরাপত্তা ত্রুটিগুলো ঠিক না করা পর্যন্ত আমাদের শিক্ষকরা জুম ব্যবহার করতে পারবেন না।”
লো আরও বলেন, শিক্ষকদেরকে নিরাপত্তা প্রটোকল নিয়ে আরও পরামর্শ দেওয়া হবে, তারা যাতে নিরাপদ লগইন ব্যবহার করেন এবং সভার লিঙ্ক শ্রেণির শিক্ষার্থী ছাড়া বাইরের কারও সঙ্গে শেয়ার না করেন।
ইতোমধ্যে জুম অ্যাপ ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে তাইওয়ান এবং জার্মানি। নিরাপত্তার কারণে মামলাও হয়েছে অ্যাপটির নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে।
এন্ড-টু-এন্ড এনক্রিপশন না থাকায় এবং ‘জুমবম্বিংয়ের’ কারণে বিশ্বজুড়েই সমালোচনার মধ্যে রয়েছে লকডাউনের মধ্যে অসম্ভব জনপ্রিয়তা পাওয়া ভিডিও কনফারেন্সিং এই সেবা। ত্রুটির কারণে আমন্ত্রিত নন এমন গ্রাহকও সভায় ঢুকে পড়ছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে।
গোপনতা এবং নিরাপত্তা ত্রুটি উন্নত করতে ৯০ দিনের পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে জুম। এ ছাড়া উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে ফেইসবুকের সাবেক নিরাপত্তা প্রধান অ্যালেক্স স্ট্যামসকে।
জুমের নিরাপত্তা ত্রুটি নিয়ে বেশ কিছু দিন ধরেই সমালোচনা চলছে বিশ্বজুড়ে। এরইমধ্যে অ্যাপটির ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছে গুগল, স্পেসএক্সসহ বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান।