পাটকেলঘাটায় রোদের চরম তাপদাহে নাকাল মানুষ; ফার্ম্মেসী, ক্লিনিক ও ডাক্তার খানায় রোগীর ভিড়

0
146

জুয়েল হোসেন, পাটকেলঘাটা (সাতক্ষীরা):
রোদের তীব্রতা, ভ্যাসপা গরম, চরম তাপদাহে পাটকেলঘাটাবাসী নাকাল হয়েছে পড়েছে। সেই সাথে বেড়েছে মানুষের বিভিন্ন প্রকার রোগ। প্রচন্ড ভ্যাপসা গরমে জনজীবন একেবারেই ওষ্ঠাগত। প্রয়োজন ছাড়া প্রখর রোদের মধ্যে মানুষ বাইরে বের হতে পারছে না। বিভিন্ন ডাক্তার খানা ও ক্লিনিকগুলোতে তীব্র গরমে অসুস্থ্য হয়ে চিকিৎসা সেবা নিতে দেখা যাচ্ছে অসংখ্য মানুষ কে। বিশেষ করে ছোট শিশু ও বয়োঃবৃন্ধরা বেশী অসুস্থ্য হয়ে পড়ছে। বাজারের বেশীর ভাগ ওষুধের ফার্ম্মেসী গুলোতে জ্বর, কাশি, এলার্জি, পেটের ব্যথা, মাথা যন্ত্রনার, ডাইরিয়ার ওষুধ বেশী নিতে দেখা যাচ্ছে। এ বিষয়ে পাটকেলঘাটা গ্রাম ডাক্তার সুপ্র দাশ মজুমদার বলেন শরীর থেকে ঘাম ঝরে দুর্বল অতঃপর অসুস্থ হওয়ার কারণে বেশি বেশি স্যালাইন খেতে হবে আর যত সম্ভব রোধ এড়িয়ে চলতে হবে। তবে দিন আনা দিন খাওয়া খেটে খাওয়া মানুষ গুলো পড়েছে নিদারুণ যন্ত্রণায়। তীব্র তাপদাহ উপেক্ষা করে তাদেরকে রোদের মধ্যে হাড়ভাঙ্গা পরিশ্রম করে দু’মুঠো খাবার সংগ্রহ করতে হচ্ছে। এদিকে গৃহ পালিত পশু ও গরমে অসুস্থ হয়ে পড়ছে। বৈশাখ থেকে শুরু হওয়া দূর্বিসহ গরমে মানুষ কষ্টে রয়েছে। তার উপরে বিদ্যুৎ এর লুকোচুরি খেলাতো আছে। দেশের অন্যান্যে জেলার তুলনায় সাতক্ষীরায় বৃষ্টি কম হওয়ায় গরমের তীব্রতা বেড়ে চলেছে।